Friday, June 14, 2024
Google search engine
Homeদক্ষিণবঙ্গনবনির্বাচিত পঞ্চায়েত প্রধান জনপ্রতিনিধিদের গ্রামীন এলাকায় ঘোরার নিদান মন্ত্রী বেচারামের

নবনির্বাচিত পঞ্চায়েত প্রধান জনপ্রতিনিধিদের গ্রামীন এলাকায় ঘোরার নিদান মন্ত্রী বেচারামের

নিজস্ব প্রতিনিধি,বাঁকুড়াঃ রাজ্যের পঞ্চায়েত গ্রামোন্নয়ন দপ্তরের একগুচ্ছ পরিকল্পনা উদ্বোধনে রাজ্যের পঞ্চায়েত ও গ্রামোন্নয়ন দপ্তরের রাষ্ট্রমন্ত্রী বেচারাম মান্না। আজ বাঁকুড়ার রবীন্দ্রভবনে মঞ্চে উপস্থিত রাজ্যের খাদ্য ও সরবরাহ দপ্তরের রাষ্ট্রমন্ত্রী জ্যোৎস্না মান্ডি, বাঁকুড়ার জেলা শাসক, জেলা পরিষদের সভাধিপতি বেশ কিছু বিধায়ক এবং কর্মাধক্ষ। দর্শক আসনে নবনির্বাচিত পঞ্চায়েতের প্রধান, উপপ্রধান, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি, সহসভাপতি সহ এক গুচ্ছ প্রশাসনিক কর্তা। সেখানে মঞ্চে বক্তব্য রাখতে গিয়ে বাঁকুড়া জেলার ১৯০টি গ্রাম পঞ্চায়েতের জনপ্রতিনিধিদের উদ্দেশ্য মন্ত্রী বলেন, ‘মানুষের সমস্যা জানার,বোঝার এবং পরিকল্পনা রুপায়নের জন্য এলাকায় ঘোরার প্রয়োজন আছে”।তিনি এও বলেন,’যদি পঞ্চায়েত প্রধানরা এলাকায় ঘোরেন মানুষের সাথে সংযোগ রাখেন তাহলে এলাকায় জনপ্রিয়তা লাভ করবেন। আর এই তকমা পেলেই আপনাকে আর কেউ কাঁড়রার মতো টেনে ধরতে পারবে না। সাধারন মানুষই বলবে এই প্রধান উপপ্রধান পঞ্চায়েত সমিতির জনপ্রতিনিধি তাদের কথা শোনেন। তিনি আরও বলেন, অফিসের বাইরে বেরিয়ে মানুষের অভাব অভিযোগ শুনতে হবে। বেচারামের পঞ্চায়েত প্রধান উপপ্রধান পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি কর্মাধ্যক্ষদের উদ্দেশ্যে এই বার্তা হুঁশিয়ারি না নির্দেশ সেটা নিয়ে সরগরম জেলার রাজনীতি। অবশ্য মন্ত্রী বেচারামের এই মন্তব্যকে কটাক্ষ করতে ছাড়েনি বিরোধী বিজেপি নেতৃত্ব। বিজেপির দাবী তৃণমূল মানেই দুর্নীতি। তাই পঞ্চায়েত প্রধান উপপ্রধানদের মানুষের কথা ভেবে পরিষেবা প্রদান করার জন্য রাস্তায় বেরোনোর ভোকাল টনিক মন্ত্রী দিলেও এতে কোন কাজ হবে না বলেই কটাক্ষ বিজেপির।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments