Friday, May 24, 2024
Google search engine
Homeদক্ষিণবঙ্গ২৮টি অপরাধের মামলা মাথায় নিয়ে ভোটে লড়ছেন দিলীপ ঘোষ

২৮টি অপরাধের মামলা মাথায় নিয়ে ভোটে লড়ছেন দিলীপ ঘোষ

নিজস্ব সংবাদদাতা, বর্ধমান, ২৪ এপ্রিল – বেপরোয়া মন্তব্যের জন্য বর্ধমান দুর্গাপুর কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধে ঝুলছে একাধিক অপরাধ মূলক মামলা। খোদ দিলীপ ঘোষের ভাষায় সবটাই রাজনৈতিক প্রতিহিংসা। তাঁর বিরুদ্ধে অপরাধমূলক মামলা রয়েছে হাওড়ার মালিপাঁচঘড়া, উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ, কলকাতার হেয়ার স্ট্রিট থানা, কলকাতা ময়দান,পূর্ব মেদিনীপুরের কাঁথি, পশ্চিম বর্ধমানের কোকওভেন, পশ্চিম বর্ধমানের জামুরিয়া, কলকাতার কালীঘাট, ঝাড়গ্রাম, পূর্ব বর্ধমানের রায়না, পশ্চিম বর্ধমানের দুর্গাপুর, উত্তর ২৫ পরগনার বিধাননগর সাংসদ-বিধায়ক আদালত, জলপাইগুড়ির নিউ জলপাইগুড়ি, পশ্চিম মেদিনীপুরের কোতোয়ালি, এবং খড়্গপুর টাউন থানায়। মামলার সংখ্যা ২৮টি। এইসব মামলা মূলত হিংসা এবং উস্কানিমূলক মন্তব্যের জন্যই বলে তিনি জানিয়েছেন। তাঁর দাবি, রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র থেকেই এত মামলা হয়েছে তাঁর নামে। হলফনামায় যা নির্বাচন কমিশনের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে সেখানে দিলীপবাবু জানিয়েছেন, সাংসদ হিসেবে ১ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা বেতন ও ভাতা পান দিলীপ। ২০২০-’২১ সালে তাঁর আয় ছিল ৭ লক্ষ ৭২ হাজার ২৩ টাকা, ২০২১-’২২ সালে ১৩ লক্ষ ৫০ হাজার ৮৬০ টাকা, ২০২২-’২৩ সালে ৯ লক্ষ ৩৩ হাজার ৯৫০ টাকা। হলফনামা অনুযায়ী দিলীপবাবুর অস্থাবর সম্পত্তি-৪০ লক্ষ ৪৫ হাজার ৫৮৯ টাকা। স্থাবর সম্পত্তি ১ কোটি ৪২ লক্ষ টাকা। নিজের কেনা সম্পত্তি-১ কোটি ৪০ লক্ষ ৪৫ হাজার ৫৮৯ টাকা। উত্তরাধিকার সূত্রে পাওয়া সম্পত্তি-৪৩ লক্ষ টাকা। গৃহঋণ-৫০ লক্ষ টাকা। এই মুহূর্তে তাঁর হাতে নগদ ৩ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা রয়েছে। স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার অ্যাকাউন্টে ১ লক্ষ ৫৬ হাজার ৭০৬ টাকা, অপর আর একটিতে ১৬ লক্ষ ৪৬ হাজার ৬৩৬ টাকা রয়েছে।ব্যাঙ্ক অফ বরোদার অ্যাকাউন্টে ৫১ হাজার ৭১ টাকা রয়েছে। ফাঁকা পড়ে রয়েছে আর একটি এসবিআই-এর আর একটি অ্যাকাউন্ট।১ লক্ষ ৪০ হাজার টাকার জীবনবিমা রয়েছে।পোস্ট অফিসের একটি অ্যাকাউন্টে দিলীপের ৩ লক্ষ ৩১ হাজার ৭৬ টাকা রয়েছে। পোস্ট অফিসের আরও অন্যান্য অ্যাকাউন্টে যথাক্রমে ৪ লক্ষ ৫০ হাজার, ৫ লক্ষ, ৪ ল৭ ২০ হাজার টাকা রয়েছে দিলীপবাবুর। সব মিলিয়ে তাঁর অস্থাবর সম্পত্তির পরিমাণ ৪০ লক্ষ ৪৫ হাজার ৫৮৯ টাকা। এছাড়াও ১.৮৮ একরের কৃষিজমি রয়েছে তাঁর। বর্তমানে যার বাজারমূল্য ৪০ লক্ষ টাকা। কুলিয়ানায় ৮০০ স্কোয়্যারফুটের একটি বাড়ি রয়েছে। আর একটি ফ্ল্যাট রয়েছে কলকাতার বামনঘাটায়, যার আয়তন ৩৪৮৩ স্কোয়্যারফুট। এর মধ্যে প্রথমটি উত্তরাধিকার সূত্রে পাওয়া বলে জানিয়েছেন দিলীপবাবু। ২০২২ সালের জানুয়ারি মাসে কলকাতার ফ্ল্যাটটি তিনি ৯৯ লক্ষ টাকা দিয়ে কেনেন বলে জানিয়েছেন। বাড়ির বর্তমান বাজারমূল্য ৩ লক্ষ টাকা এবং ফ্ল্যাটটির ৯৯ লক্ষ টাকা বলে কমিশনকে জানিয়েছেন।তাঁর মোট স্থাবর সম্পত্তির পরিমাণ ১ কোটি ৪২ লক্ষ টাকা।
বাড়ি করার জন্য স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া থেকে ৫০ লক্ষ টাকা গৃহঋণ নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments