Friday, May 24, 2024
Google search engine
Homeদক্ষিণবঙ্গ'কোর্ট ফিক্সিং হচ্ছে' অভিযোগ অভিষেকের

‘কোর্ট ফিক্সিং হচ্ছে’ অভিযোগ অভিষেকের

সাথী প্রামানিক, পুরুলিয়া, ২৫ এপ্রিল: “কলকাতা হাইকোর্টের একাংশ বিজেপির সাথে যোগসাজশে রয়েছে। তাদের কথায় বিচার ব্যবস্থা প্রভাবিত হয়ে রায় দিচ্ছে । কোর্ট ফিক্সিং হচ্ছে। আগে আমরা ম্যাচ ফিক্সিং শুনতাম। এখন ফিক্সিংয়ে নতুন মাত্রা এড করছে কলকাতা হাইকোর্টের একাংশ। বিজেপির লোকেরা ব্যাটিং করছে আর সেই ব্যাটিং এ দোসর হিসেবে কাজ করছে বিচারকের আসনে থাকা কিছু বিচারপতিরা।” পুরুলিয়ায় সংগঠনিক বৈঠকে যোগ দেওয়ার পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বললেন অভিষেক ব্যানার্জী। এদিন অভিষেক ব্যানার্জীর বিরুদ্ধে কমিশনে অভিযোগ দায়ের করার প্রশ্ন অভিষেক ব্যানার্জী বলেন, “যে প্রতিনিধিরা মানুষের ভোটে নির্বাচিত হয়ে ২০২১ সালে বিধায়ক হওয়ার পর কেন্দ্র সরকারকে বলে মানুষের টাকা বন্ধ করে দাও, তাকে বেহায়া বলবো না তো কি বলবো । এই বিজেপির বিধায়ক তিন বছরে একটা চিঠিও কেন্দ্র সরকারকে লিখেছে, যে মানুষকে বঞ্চনা করবেন না । ওনারা যখন বলেন তখন ভালো । মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বলে বুড়ি, চোর। তখন কি এই শব্দ গুলো ভালো ? বিজেপি যে ভাষা বোঝে বিজেপিকে সেই ভাষায় জবাব দিতে আমি জানি। মানুষের টাকা যে বঞ্চিত করবে, মানুষের টাকা আটকে রাখবে সে এই ভাষাতেই আক্রমন শুনবে ।
এছাড়াও প্রাক্তন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের নাম না করে তিনি বলেন, আদালতের জজেরা যাঁরা মামলা শুনছিলেন তাঁরা আজকে বিজেপির প্রার্থী এবং যাঁরা পরিকল্পিত ভাবে বিজেপির কথায় রায় দিচ্ছে । আজকে ২৫ হাজার যোগ্য লোকের চাকরি কেড়ে নিল আদালত। তারমানে আদালতের তর্কেই ধরি যে এই মামলা শুনছিল সে যদি বিজেপিতে যায় তাহলে ভারতবর্ষ থেকে আদালতটাকেই তুলে দেওয়া উচিত। আদালতের বক্তব্য হিসেবে। এদিন বিজেপি জ্যোতির্ময় সিং মাহাতোর প্রসঙ্গ টেনে কেন্দ্র সরকার তুলোধোনা করেন অভিষেক ব্যানার্জীর । তিনি বলেন, জ্যোতির্ময় সিং মাহাতো ভোট নিয়ে ১০০ দিনের টাকা, আবাসের টাকা বন্ধ করেছে। ৫০ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকা করেছে । ১০০০ টাকা লক্ষীর ভান্ডারের টাকা দিচ্ছে রাজ্য সরকার আর কেন্দ্র সরকার আধার আর পেন কার্ডের লিঙ্ক করার নামে নিয়ে নিচ্ছে। মানুষকে দীর্ঘদিন ধরে বঞ্চিত করেছে, নিজেদের রাজনৈতিক স্বার্থ চরিতার্থ করেছে। মানুষের ভোটাধিকার প্রয়োগ করার অধিকার কেড়ে নিয়েছে। বৃহস্পতিবার, পুরুলিয়ায় সাংগঠনিক বৈঠক করেন তৃণমূলের সেকেন্ড ইন কমান্ড অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। পুরুলিয়া শহরের একটি বেসরকারি রিসর্টে আয়োজিত ওই সভা শুরুর আগে প্রার্থী শান্তিরাম মাহাতো ছাড়াও মন্ত্রী সন্ধ্যা রানি টুডু, দলের জেলা কমিটির চেয়ারম্যান হংসেস্বর মাহাতো, সভাপতি সৌমেন বেলথরিয়া, পুরুলিয়া লোকসভার দলীয় কমিটির চেয়ারম্যান সুজয় ব্যানার্জি প্রমুখ নেতৃত্বের সঙ্গে টানা চল্লিশ মিনিট ধরে বৈঠক করেন।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments